1. admin@subornobangla.com : admin :
  2. biplob.rajgouri@gmail.com : Seikh Biplob : Seikh Biplob
  3. subornobanglabd@gmail.com : Editor : Ronty Chowdhury
  4. hkgouripur@gmail.com : Humayun : Humayun
শনিবার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:১৬ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
‘কাবিনে টাকা বৃদ্ধির লোভ দেখিয়ে ধর্ষণ’, কাজী গ্রেপ্তার কৃষকের মুখে সোনালী হাসি আমনে বাম্পার ফলন জঙ্গিবাদ-মৌলবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে ৫৩নং ওয়ার্ড যুবলীগের বিক্ষোভ মিছিল গৌরীপুর পৌর নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী রন্টির মটরসাইকেল শোডাউন বণানী কবর স্থানে শহীদদের কবরে এমপি হাবিব হাসানের শ্রদ্ধা বণানী কবর স্থানে শহীদদের কবরে এমপি হাবিব হাসানের শ্রদ্ধা আদালতের নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে জোর পূর্বক জমিতে প্রবেশ, পুলিশের বাঁধার মুখে ধানা কাটা বন্ধ তুরাগে জঙ্গিবাদ- মৌলবাদ ও সাম্প্রদায়িকতার বিরুদ্ধে যুবলীগের বিক্ষোভ ভালুকায় অগ্নিকান্ডে ১২ টি বসতঘর পুড়ে ছাই ভালুকায় বনবিভাগের জমিতে নির্মাণ হচ্ছে বহুতল ভবন

ভালুকায় মাল্টা ও লেবু বাগান ধ্বংস করার অভিযোগ বন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে

  • প্রকাশের সময় : বৃহস্পতিবার, ২৯ অক্টোবর, ২০২০
  • ২৫ দেখা হয়েছে

ভালুকা (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি:

ময়মনসিংহের ভালুকা উপজেলার হবিরবাড়ী ইউনিয়নের ঝালপাজা এলাকায় স্পাইডার গ্রুপ নামের একটি প্রতিষ্ঠানে বনবিভাগের লোক জন আদালতের রায় অমান্য করে রোপনকৃত মাল্টা ও লেবু বাগানের গাছ উপড়ে ফেলে দেওয়ার অভিযোগ উঠেছে বন কর্মকর্তাদের বিরুদ্ধে। ঘটনাটি ঘটেছে বুধবার দুপুরে। এ ঘটনায় ভুক্তভোগি বাগান মালিকের পক্ষ থেকে বৃহস্পতিবার দুপুরে ভালুকা মডেল থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন।

সূত্রে জানা যায়, ঢাকার ব্যবসায়ী রেজাউল করিম রিয়াজ ও রিপন মিয়া ঝালপাজা মৌজায় ৬ টি দাগে মোট ৫০ বিঘা জমি ক্রয় করেন। জমি ক্রেতা ২০৭ ও ২০৮ নং দাগে ৮ জন বন্দোবস্ত প্রাপ্ত জমির মালিকদের কাছ থেকে ১০.৬৮ শতাংশ জমি ক্রয় করেন। জমি ক্রয়ের পর জানতে পারেন ২০৭ ও ২০৮ নং দাগ দুটিতে বনের আপত্তি রয়েছে এবং বনের গেজেটভূক্ত জমি।

সেই প্রেক্ষিতে জমি ক্রেতাদ্বয় ফরেস্ট সেটেলমেন্ট অফিসার ও অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) বরাবর দুটি মিস মোকদ্দমার যার নং ০৬/১৫ ও ৩২/২০১৮ইং দায়ের করেন। ফরেস্ট সেটেলমেন্ট অফিসার রেজাউল করিম রিয়াজ গং দের পক্ষে রায় দেন।

ওই রায়ের বিরুদ্ধে অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (রাজস্ব) এর আদালতে বনবিভাগ আপিল করেন। বন আদালত থেকে জমির মালিকদের পক্ষে বন থেকে অবমুক্তির একটি রায় দেয়া হয়। গত ৫ অক্টোবর বনের বিপক্ষে রায় হয়। রায়ে ২০৭ ও ২০৮ নং দাগের ৯.৯৮ একর জমি বন থেকে অবমুক্ত করে দেয় হয়। গত ৪ মাস পূর্বে জমির মালিকগণ ওই জমিতে স্পাইডার গ্রুপ সেখানে মাল্টা ও বেলু বাগান শুরু করেন।

জমির স্থানীয় রক্ষনাবেক্ষনকারী রাসেল মিয়া জানান, ৪ মাস পূর্বে মাল্টা ও লেবু চারা লাগনোর সময় বিট অফিসার দেওয়ান আলী বাঁধা দিয়ে ১০ লাখ টাকা ঘুষ দাবী করেন। তার সাথে চুক্তি মোতবেক তখন ৫ লাখ টাকা দেই ৪/৫ পর বাকী টাকা দেয়ার কথা ছিল। বন আদালতের রায় পাওয়ার পর বাকী টাকা না দেয়ার ক্ষোব্ধ হয়ে ঘটনার দিন দুপুরে হবিরবাড়ী রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা মোজাম্মেল হোসেন, বিট অফিসার দেওয়ান আলী, মলিকবাড়ি বিট অফিসার মোস্তাফিজুর রহমানের নেতৃত্বে অস্ত্রসস্ত্রসহ কর্মচারী ও বনের ভাড়া করা লোক নিয়ে মাল্টা ও লেবু বাগানের সাড়ে ৭ হাজার গাছ উপড়ে ফেলে বাগান ধ্বংস করে দিয়েছে। স্পাইডার গ্রুপের এ্যাডমিন ম্যানেজার মোহাম্মদ জামাল উদ্দিন জানান, আমরা বন থেকে অবমুক্তি করে আদলত থেকে রায় নিয়ে ওই জমিতে মালটা ও লেবুর চারা রোপন করি। বন বিভাগ ওই সকল চারা ধংস করে আমাদের প্রায় ১৪ লক্ষ টাকা ক্ষতি করেছে। আমরা বন বিভাগের বিরুদ্ধে ভালুকা মডেল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছি।

বিট অফিসার দেওয়ান আলী জানান, আমরা ময়মনসিংহ বিভাগীয় কমিশনের বরাবর মিস কেইস দুটি আপিল করেছি। দাগ ২টি বনের গেজেট ভূক্ত সেই জমি আমরা উদ্ধার করেছি। ঘুষ নেওয়ার কোন প্রশ্নই আসে না। হবিরবাড়ী রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা মোজাম্মেল হোসেন জানান, জবরদখল হওয়া বন ভূমি উদ্ধার করে বন বিজ্ঞপ্তিত সাইবোর্ড টানিয়ে দিয়েছি।

জবরদখলকারীরা বন বিভাগের উপর মিথ্যা অভিযোগ করছেন তা সঠিক নয়। ভালুকা মডেল থানার অফিসার ইনর্চাজ মোহাম্মদ মাইন উদ্দিন জানান, আমি এখনো অভিযোগ পাইনি অভিযোগ পেলে তদন্তপূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সুবর্নবাংলা-এসএমবি

সোস্যাল মিডিয়াতে আমাদের খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় অন্যান্য খবর
© All rights reserved © 2020 SuborboBangla
Theme Download From ThemesBazar.Com